কমলা লেবুর খোসার ব্যবহার

0
76
কমলা লেবুর খোসার উপকারীতা

কমলা লেবু একটি শীত কালীন ফল। কিন্তু কমলা লেবু এখন বারো মাস পাওয়া যায়। আমরা অনেকে কমলা লেবু খেয়ে থাকি আর খোসা গুলো ফেলে দেই। কিন্তু অনেকেই জানি না যে, কমলার খোসায় রয়েছে অসাধারন উপকারীতা। চলুন জেনে নেয়া যাক কমলা লেবুর খোসার কিছু উপকারীতা।

কমলা লেবুর খোসার উপকারীতা সমূহ

১) কমলার খোসাতে বিদ্যমান অ্যান্টি-মাইক্রোবিয়াল, অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি ও অ্যান্টি-ফাঙ্গাল উপাদান ব্রণের বিরুদ্ধে কাজ করে মুখের ব্রণের সমস্যা দূর করে। তাই প্রতিদিন গোসলের পূর্বে কমলার খোসার ফেসপ্যাক মুখে মাখলে ব্রণ থেকে আনায়াসে মুক্ত লাভ করা যায়।

২) মুখের ও দাঁতের জন্য কমলা লেবুর খোসা অত্যান্ত উপকারী। কমলা লেবুর খোসা বেটে নিয়ে সামান্য পানি মিশিয়ে দাঁতে পেষ্টের মত ব্যবহার করলে মুখের র্দগন্ধ দূর হয় এবং দাঁতের পাথর সহ কালো দাগ দূর হয়।

৩) কমলা লেবুর খোসা মুথের ত্বকের জন্য বিশেষ উপকারী। তবে কমলা লেবুর খোসা সরাসরি মুখের ত্বকে প্রয়োগ করা উচিৎ নয়। সকলে মসুর ডাল ও কমলা লেবুর খোসা একসাথে বেটে মুখের ত্বকে প্রয়োগ করলে মুখের ত্বক মসৃণ ও তৈলাক্ততা সমান্তরাল ভবে নিয়ন্ত্রিত হয়। ফলে মুথের ত্বকে উজ্জলতা বৃদ্ধি পায়।

৪) কমলা লেবুর খোসা পেটের অসুখ থেকে মুক্তি দেয়। অনেকের পেটে বদহজম হয়, ক্ষুধামন্দা দেখা দেয়। এই সমস্যা গুলো দূর করার জন্য কমলা লেবুর খোসার রস অনেক উপকারী। তাছাড়া কমলা লেবুর খোসার রস পেটের অ্যাসিটিডি কমাতে সাহায্য করে।

৫) হাত ও পায়ের নখ সুন্দর ও সাদা করতে কমলা লেবুর খোসা সহযোগীতা করে। অনেক ছেলে-মেয়ে হাত ও পায়ের নখে সমস্যা থাকে এবং হাতের নখ ভেঙে যাওয়া প্রবনতা থাকে তারা নিয়মিত কমলা লেবুর খোসা বেটে মধু দিয়ে নখে লাগালে নখ সুন্দর হয়।

বিঃদ্রঃ নিয়মিত পোষ্ট পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজটি লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন সেই সাথে এই পোষ্টটি আপনার ভালো লাগলে শেয়ার করুন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here