ঠোঁটের কালো দাগ দূর করার উপায়, কি করলে ঠোঁট সুন্দর হয়

0
219
ঠোটের কালো দাগ দূর করার উপায়

এমন কোন নারী পুরুষ পাওয়া যাবে না যে তারা তাদের ঠোঁটকে সুন্দর করতে চাই না। ঠোঁট মুখের সুন্দর্য্য বৃদ্ধি করে। একজোড়া ঠোঁট আপনাকে দিতে পারে সুন্দর মুখের হাঁসি। অনেকের ঠোঁট দেখা যায় কালো বা ফ্যাকসা ধরনের। নারীরা বেশ ঠোঁটের প্রতি যত্নবান কিন্তু পুরুষরা কর্মব্যস্ততার ফলে ঠিকমত ঠোঁটের যত্ন নিতে পারে না। তাই আজ আমরা জেনে নিবো কালো ঠোঁট বা ঠোঁটের ফ্যাকাসে ভাব দূর করার কিছু টিপস।

ঠোঁটের কালো দাগ দূর করার উপায়

১. বাতাবি লেবুর এক টুকরো কেটে তার উপরে সামান্য চিনি ছিটিয়ে নিয়মিত ঠোঁটে ঘষলে ঠোঁটের কালো দাগ দূর হয়। চিনি ঠোঁটের মরা চমড়াগুলো তুলে ফেলতে সাহায্য করে।

২. খাটি মধুর সাথে কয়েক ফোঁটা অলিভ ওয়েল মিশিয়ে প্রতিদিন রাতে ঠোঁটে লাগাতে হবে। সাত দিনে আপনার ঠোঁটের কালো ভাব দূর হয়ে গোলাপী ভাব চলে আসবে।

৩. গরুর দুধে ল্যাক্টিক অ্যাসিড পাওয়া যায় আর ল্যাক্টিক অ্যাসিড ঠোঁটের জন্য খুবই উপকারী। নিয়মিত দুধ তুলো বা টিস্যুতে নিয়ে ঠোঁটে লাগালে ঠোঁট উজ্জল হয়ে উঠবে।

৪. লেবুর রসের সাথে পরিমান মত মধু মিশিয়ে নিন। এটা একটি পাত্রে রেখে দিতে পারেন। সকালে বাহিরে যাওয়ার সময় এবং রাতে ঘুমানোর সময় লেবুর রস ও মধুর দ্রবণটি ঠোঁটে ভালো ভাবে লাগিয়ে নিন। তিন দিনে আপনি আপনার ঠোঁটের উজ্জলতা বুঝতে পারবেন।

৫. কমলা লেবুর খোঁসা ও বিঁচি সংগ্রহ করে বেটে একটি পাত্রে রেখে দিন। নিয়মিত গোসলের ১ ঘন্টা পূর্বে ভালো করে ঠোঁটের কোনা সহ ঘষতে থাকুন। এতে আপনার ঠোঁটের কালচে ভাব দূর হওয়ার সাথে ঠোঁট ফাঁটা দূর হবে।

৬. টমেটোর রস ও শসার রস শরীরের ত্বকের জন্য উপকারী। পরিমান মত টমেটোর রস ও শসার রস মিশিয়ে ঠোঁটে ভালো ভাবে লাগান। আপনার ঠোঁটে গোলাপী আবরণ চলে আসবে।

৭. প্রতিদিন ঘুম থেকে উঠে সাদা রঙের পেষ্ট ব্যবহার করুন। ব্রাশ করার সময় এই পেষ্ট ঠোঁটে লাগিয়ে দিন। ভালো ভাবে শুকিয়ে গেলে ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। আপনার ঠোঁট রোগমুক্ত ও উজ্জল হবে।

পরিহার

শুধু মাত্র উপরোক্ত টিপস গুলো পালন করলে হবে না। পাশাপাশি কিছু নিয়ম মেনে চলতে হবে। অনেক মেয়ে আছে যারা ঠোঁট সুন্দর ও উজ্জলতা বৃদ্ধি করার জন্য বেটনোভেট সি-এল ক্রিম ও অয়েন্টমেন্ট ব্যবহার করে। যা একটি সুস্থ্য মেয়ের জন্য অনেক ক্ষতিকর। বেটনোভেট সি-এল ক্রিম ও অয়েন্টমেন্ট টি শুধু মাত্র ত্বকের চর্মরোগ ও প্রদাহ সহ একজিমা রোগের ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়। যদি এই ক্রিম বা অয়েন্টমেন্ট টি কোন ভাবে আপনার পাকস্থলীতে প্রবেশ করে তাহলে মারাত্বক ক্ষতি হতে পারে। তাই অবশ্যই এটি পরিহার করতে হবে।

শতকরা ৯৭ ভাগ পুরুষ ধমপান করে থাকেন। আপনার জেনে অবাক হবেন যে সিগারেটের নিকোটিন শরীরের চামড়াতে বিভিন্ন প্রদাহ সৃষ্টি করতে ভূমিকা রাখে। তাই যারা ধুমপান করেন তাদের ঠোঁট সাধারনের থেকে ভিন্ন বা কালো হয়ে থাকে। ঠোঁট সুন্দর ও কালো দাগ দূর করতে হলে উপরোক্ত টিপস গুলো ব্যবহার করার পাশাপাশি ধুমপান বন্ধ করতে হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here