যে কারনে সেক্স আপনার জন্য জরুরী, সেক্সের কিছু প্রয়োজনীয়তা

2
430
সেক্স

পৃথিবীর প্রতিটা প্রাণীর মধ্যে সেক্স আছে আর এই কারনেই সেক্স নিয়ে মানুষের এত কল্পনা বা চিন্তা। একটি সুস্থ্য নারী ও পুরুষের সেক্সের প্রয়োজন আছে এটা আমরা সবাই জানি। কিন্তু এই সেক্সের জন্য যেন কেউ অন্ধকার জগতে প্রবেশ না করে সেটা বিশেষ লক্ষ্য হিসাবে থাকলো। একজন প্রাপ্ত সুস্থ্য নারী বা পুরুষের প্রতি সপ্তাহে ২ থেকে ৩ দিন যৌন মিলন করা উচিৎ। সুুস্থ্য ভাবে জীবন যাপন করার জন্য বিভিন্ন চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা যৌন মিলন কে আক্ষায়িত করেছে। তবে যারা অপ্রাপ্ত এবং অবিবাহিত তাদের সেক্স নিয়ে চিন্তা ভাবনা করাটা জরুরী নয় বরং আপনার ক্ষতি হবে। তবে চলুন জেনে নেয়া যাক যৌন মিলনের কিছু প্রয়োজনীয়তাঃ-

১) নিয়মিত যৌন মিলন শারীরিক ব্যায়ামের সাথে তুলনা করা হয়। যেসব নারী পুরুষ সপ্তাহে দুই থেকে তিন বার যৌন মিলনে করে থাকে তাদের হৃদরোগের আশংখা থাকে না।
২) অনেক গবেষনা করে দেখা গেছে মাইগ্রেনের ব্যথা দূর করতে যৌন মিলন অনেক ভুমিকা পালন করে। কারন, একজন যৌন মিলন করলে ব্রেনের রক্ত নালী গুলো স্বাভাবিক থাকে।
৩) নিয়মিত যৌন মিলনে প্রতিটি মানুষের যৌবন দীর্ঘায়ু হয়, এটি জাপানের একটি গবেষনায় পাওয়া গেছে।
৪) ব্রেন ষ্ট্রোক, স্মৃতি শক্তি সহ বিভিন্ন দিকে যৌন মিলনের উপকারীতা আছে, কারন নিয়মিত যৌন মিলন করলে মাথার কোষ বা স্নায়ু বৃদ্ধি পেতে থাকে যা মানবদেহে প্রয়োজনে।
৫) নিয়মিত যৌন মিলনে ঘুম ভালো হয় আর ঘুম মানুষের একটি বিশেষ অংশ। আর সেই সাথে যাদের শরীরে চর্বি বেশি তাদের জন্য করনীয় হল আপনার যতটা সম্ভব পেট দুলিয়ে সেক্স করুন এবং একটু জোড়ালো ভাবে করুন এতে আপনার শরীরের মেদ চর্বি কমে যাবে।
৬) একটু বেশি সময় নিয়ে সেক্স করুন এতে আপনার সঙ্গি ও আপনি দুজনেই মজা পাবেন। আর বেশি সময় নিয়ে সেক্স করার উপকারীতা হলো প্রতিবার অর্গ্যাজমের সময় পুরুষ ও নারীর শরীরে এনডরফিন এবং অক্সিটসিন হরমোন নিঃসরণ হয়, আর এই হরমোন মানুষের উপকার করে থাকে।
৭) দুধের মধ্যে থাকা ভিটামিন এ পুরুষ সেক্স হরমোনের পরিমাণ বৃদ্ধি করে তাই প্রতিবার সেক্স করার পূর্বে এক গ্লাস দুধ পান করুন।
৯) নিয়মিত সেক্স করলে আপনার কাজে মনযোগ আসবে যেমন, আপনি সেক্স বিষয়টি জানেন তাই কর্মক্ষেত্রে বা অন্যান্য সময়ে সেক্স নিয়ে তেমন একটা চিন্তা আসবে না। এত আপনার সব কিছুই সঠিক ভাবে সম্পন্ন হবে।
১০) সেক্স সকল ধর্মে বলা হয়েছে, তবে নিজের স্ত্রী ছাড়া অন্য কারো সাথে সেক্স করা ইসলামে হারাম। তাই সেক্স পরিত্রতা রক্ষা করে।

উপরোক্ত বিষয়গুলো সেক্স বা যৌন মিলনের উপকারীতা। কিন্তু এর কিছু অপকারীতাও রয়েছে। এই বিষয়ে আপনাদের অন্য আরেকদিন জানাবো। তবে কিছু কথা না বললেই নয়, সেক্স শুধু মাত্র তাদের জন্য যারা প্রাপ্ত বয়স্ক এবং সেক্স করার বৈধ্য নিয়ম বা পথ আছে। আপনি যদি হস্তমৈথুন করে থাকেন তাহলে এটাকে সেক্স বলা যাবে না। তার কারন, হস্তমৈথুন করলে আপনি উপরোক্ত একটিরও ফল পাবেন না বরং আপনার ক্ষতি হবে। হস্তমৈথুনের সবচেয়ে মারাত্বক ক্ষতি হলো আপনার লিঙ্গ স্বাভাবিক থকবে না। ক্ষতিগ্রস্থ হয়ে যাবে যেমন, আপনার লিঙ্গ বাঁকা হয়ে যাবে, গোঁড়া চিকন হয়ে যাবে, লিঙ্গের আকৃতি ছোট হয়ে যাবে, আপনার বীর্য পাতলা হয়ে যাবে। আর মেয়েদের হস্তমৈথুনের ক্ষতি হলো আপনার ভগাংকুরে স্বাভাবিক সেক্স বা উত্তেজনা থাকবে না। এটা আপনার ভবিষতে মারাত্বক প্রভাব ফেলবে।

বিঃদ্রঃ নিয়মিত পোষ্ট পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজটি লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন সেই সাথে এই পোষ্টটি আপনার ভালো লাগলে শেয়ার করুন।

2 COMMENTS

  1. আমার অনেক সেক্স কিন্তু আমার হাসবেন্ড সেক্স করতে চাই না ঠিকমত, এখন আমি কি করতে পারি? দয়া করে জানাবেন

    • মুন্নি আক্তার, মুলত সেক্স বিষয়টি সম্পূর্ণ নির্ভর করে থাকে স্বামী ও স্ত্রী দুজনের চাহিদার উপর। আপনার হাসবেন্ড সুস্থ্য থাকলে আপনার সাথে প্রতি সপ্তাহে অনন্ত দুই বার সেক্স করতে চাইবে। এখন আপনার যদি আরও চাহিদা থেকে থাকে তাহলে এটা নিয়ে স্বামীর সঙ্গে আলোচনা করুন।

      ধন্যবাদ আপনাকে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here