রমজান মাসে যৌন মিলনের সঠিক সময়

0
854
রমজান মাসে যৌন মিলন

আমাদের সকলের মনে একটা প্রশ্ন জাগে যে রমজান মাসে স্বামী-স্ত্রীর যৌনমিলন করা যাবে কি বা না? রমজান মাসে সাহরীর শেষ সময় হতে ইফতার পর্যন্ত যৌনমিলন করা হারাম এবং ১০০% আপনার রোজা ভেঙে যাবে। সেই সাথে আপনি মারাত্বক পাপী হয়ে যাবেন। ইফতারীর পরে থেকে সাহরীর শেষ সময় পর্যন্ত যৌন মিলন করা যাবে।

রোজা থাকা অবস্থায় স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে চুম্বন করা যাবে এবং গোপন আলাপ করা যাবে যদি আপনার যৌন উত্তেজনা না হয়। যে সকল মহিলাদের রোজার সময় মাসিক হয় তাদের জন্য রোজা না রাখলে কোন সমস্যা হবে না। পরবর্তীতে বাঁকি রোজা করতে হবে। যাদের উপর রোজা ফরজ হয়ে গেছে তাদের অবশ্যয় রোজা পালন করতে হবে।

যে ব্যক্তি রোজা থাকা অবস্থায় যৌন মিলন করে থাকে তাকে অনেক কাফফারা দিতে হয় তার মধ্যে সবচেয়ে বড় কাফফারা হলো একাধারে ২ মাস রোজা পালন করা। তবে যদি স্বামী ও স্ত্রীর মধ্যে যৌন মিলন হয় তাহলে কাফফারা দিতে হবে না। যদি কোন নারী যৌনমিলনে সাড়া দেয় তাহলে একই বিধান নারীর ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য হবে। আর যদি নারীর সথে জোর পূর্বক মিলন করা হয় তাহলে নারীর উপর কোন কাফফারা ওয়াজিব হবে না।

উল্লেখ্য থাকে যে, যৌন মিলনের সময় বীর্যপাত না হলেও স্বামী ও স্ত্রী উভয়ে গোনাহগারী বলে বিবেচিত হবেন। তাই রমজান মাসে যৌন মিলনের সঠিক সময় ইফতারীর পরে থেকে সাহরীর শেষ সময় পর্যন্ত। যদি আপনার স্ত্রী রাজী থাকেন তাহলে আপনি এই সময়ের মধ্যে একাধিকবার যৌন মিলন করতে পারবেন। কোন সমস্যা বা গোনাহ হবে না। আরও একটি বিষয় আছে, যৌন মিলনের পরে অবশ্যয় ফরজ গোসল করে সাহরী খেতে হবে এবং ফজরের নামাজ আদায় করতে হবে।

বিঃদ্রঃ নিয়মিত পোষ্ট পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজটি লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন এবং সেই সাথে এই পোষ্টটি আপনার ভালো লাগলে শেয়ার করুন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here