হাত পা ঘামলে করনীয় কি? হাত পা ঘামার হোমিও ঔষধ

0
416
হাত পা ঘামার হোমিও ঔষধ

হাত পা ঘামার প্রাথমিক কারণ হিসেবে তেমন কিছু আজ পর্যন্ত পাওয়া যায়নি। তবে অতিরিক্ত স্নায়বিক উত্তেজনার কারণে ঘাম হয়ে থাকে। এ ছাড়া আরও কিছু কারণে হাত পা ঘামা রোগ হতে পারে। যেমন পারকিনসন্স ডিজিজ, থাইরয়েডে সমস্যা, ডায়বেটিস, জ্বর, শরীরে গ্লুকোজের স্বল্পতা, অনিয়মিত মাসিক চক্র সহ ভয় ভীতির কারনেও হাত পা ঘামতে পারে। অনেক সময় শরীরে ভিটামিনের অভাব থাকলেও হাত পা অতিরিক্ত ঘামতে পারে। আবার মানসিক চাপ, দুশ্চিন্তা ও জেনেটিক বা বংশগত কারণে হাত পা ঘামা রোগ হতে পারে।

হাত পা ঘামার চিকিৎসা

সঠিক কারণ বের না করে চিকিৎসা করা উচিত নয়। আগে অনুসন্ধান বা পরীক্ষা নিরীক্ষা করে কারণ খুঁজতে হবে যে কেন হাত পা ঘামছে। তারপর সঠিক চিকিৎসা নিলে এ সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব। সাধারণত বিভিন্ন ভাবে হাত পা ঘামা কমানো যেতে পারে। অ্যালুমিনিয়াম ক্লোরাইডযুক্ত একধরনের বিশেষ লোশন হাত পায়ে ব্যবহার করলে হাত পা ঘামা দূর হয়। এছাড়াও বিশেষ ধরনের বৈদ্যুতিক যন্ত্রে হাত পা সেকে নিলে হাত পা ঘামা কমে যাবে। পরবর্তী সময়ে এটি দেখা দিলে আবার একই ভাবে সেই বৈদ্যুতিক যন্ত্রে হাত পা সেকে নিতে হবে। এসব পদ্ধতি ছাড়াও একটি বিশেষ ধরনের নার্ভের অস্ত্রোপচার করেও হাত পা ঘামা দূর করা সম্ভব। তবে হাত পায়ের ঘাম রোধে যা করা হোক না কেন এর আগে অবশ্যই একজন অভিজ্ঞ চর্ম বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিতে হবে।

হাত পা ঘামার হোমিও চিকিৎসা

হাত ঘামার প্রতিরোধে কিছু হোমিও মেডিসিনের নাম দেওয়া হলো। তবে অবশ্যই এই মেডিসিন সেবন করার পূর্বে একজন অভিজ্ঞ চর্ম চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে সেবন করবেন।

মেডিসিনের নাম

Silicea, Petrolium, Plumbum Met, Psorinum

পরিশেষে, হাত পা ঘামার পূর্ণ চিকিৎসার বিস্তারিত পেতে এই লিংকে প্রবেশ করে দেখে নিতে পারেন। অতিরিক্ত চাপ প্রয়োগ করে হাত পা ঘামা নিয়ন্ত্রণ করতে গেলে কিডনীর ক্ষতি হতে পারে তাই ভালো ভাবে পরীক্ষা করে তারপরে চিকিৎসা গ্রহণ করবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here